শিগগিরই প্রকাশ করা হবে ১৩তম শিক্ষক নিবন্ধনের ফলাফল

ফলাফল যা-ই হোক শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষার খাতা নতুন করে মূল্যায়ন করানো অথবা নম্বর গণনা করানো বা অন্য কোনোভাবে চ্যালেঞ্জ করা যাবে না। কর্তৃপক্ষের দেয়া ফলাফলই মেনে নিতে হবে পরীক্ষার্থীদেরকে।

এসএসসি, এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল চ্যালেঞ্জ করার আবেদন করলে সংশ্লিষ্ট বিষয় উল্লেখ করতে হয়। শিক্ষাবোর্ড কর্তৃপক্ষ শুধু সংশ্লিষ্ট খাতায় পরীক্ষক কর্তৃক দেয়া নম্বর আরেকবার গণনা করে দেখেন। কোনো খাতা নতুন করে মূল্যায়ন হয় না। কিন্তু শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষায় ফল যা-ই হোক না কেন ফল চ্যালেঞ্জ করা যাবে না, খাতার দেয়া নম্বর নতুন করো গণনা করানো বা দেখা যাবে না। ফল প্রকাশে কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত। নিবন্ধন কর্তৃপক্ষের একাধিক কর্মকর্তা দৈনিকশিক্ষাকে এ খবর নিশ্চিত করেছেন।

সম্পূর্ণ নতুন বিধি অনুযায়ী এয়োদশ শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। ৬ লাখের বেশি পরীক্ষা বসেছেন বলে কর্তৃপক্ষ সূত্রে জানা গেছে। গত ১৩ মে প্রিলিমিনারি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়ছে, খুব শিগগিরই ফল প্রকাশ হবে। নতুন নিয়ম অনুযায়ী শিক্ষক নিবন্ধন কর্তৃপক্ষই সহকারি শিক্ষক ও প্রভাষকসহ এন্ট্রি লেভেলে শূন্যপদে নিয়োগের জন্য প্রার্থী নির্বাচন করে দেবে। স্কুল-কলেজ-মাদ্রাসা ও কারিগরি প্রতিষ্ঠান ব্যবস্থাপনা কমিটি শুধু নিয়োগপত্র দেবে। ব্যবস্থাপনা কমিটির হাতে নিয়োগ পরীক্ষা নেয়া বা প্রার্থী পছন্দের কোনো ক্ষমতা নেই।

সূত্র: দৈনিক শিক্ষা

হোম পরীক্ষা চাকুরী উচ্চশিক্ষা