প্রশিক্ষণ পাবে ১৫ হাজার বেকার

যুব প্রশিক্ষনদেশের যুবদের প্রশিক্ষণ দিচ্ছে যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর। মূল লক্ষ্য আত্মকর্মসংস্থান সৃষ্টির মাধ্যমে বেকারত্ব নিরসন। যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক (প্রশিক্ষণ) মাসুদা আকন্দ জানান, দেশের বেকার যুবক-যুবতীদের আত্মকর্মসংস্থানের মাধ্যমে স্বাবলম্বী করে তোলা বা কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করে বেকারত্ব নিরসন করাই প্রশিক্ষণের প্রধান উদ্দেশ্য। জানুয়ারিতে শুরু হতে যাওয়া প্রশিক্ষণ কোর্সে সারা দেশে প্রায় ১৫ হাজারজন প্রশিক্ষণ পাবেন। ১৫ ডিসেম্বরের বাংলাদেশ প্রতিদিনে প্রশিক্ষণার্থী ভর্তির বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছে। বিজ্ঞপ্তিটি পাওয়া যাবে www.dyd.gov.bd লিংকে।

প্রশিক্ষণের বিষয় ও মেয়াদ

গবাদি পশু, হাঁস-মুরগি পালন, প্রাথমিক চিকিৎসা, মত্স্য চাষ ও কৃষি বিষয়ে দুই মাস ১৫ দিনের আবাসিক প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। কোর্স শুরু হবে ১৭ জানুয়ারি, চলবে ৩১ মার্চ পর্যন্ত। পোশাক তৈরি, মডার্ন অফিস ম্যানেজমেন্ট অ্যান্ড কম্পিউটার অ্যাপ্লিকেশন, ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড হাউসওয়্যারিং, রেফ্রিজারেশন অ্যান্ড এয়ারকন্ডিশনিং, ইলেকট্রনিকস বিষয়ে দেওয়া হবে ছয় মাসের অনাবাসিক প্রশিক্ষণ। ৩ জানুয়ারি কোর্স শুরু হয়ে চলবে ৩০ জুন পর্যন্ত।

আবেদনের যোগ্যতা

যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের পরিচালক (প্রশিক্ষণ) মো. শহিদুল ইসলাম জানান, পোশাক তৈরি, ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড হাউসওয়্যারিং, রেফ্রিজারেশন অ্যান্ড এয়ারকন্ডিশনিং, ইলেকট্রনিকস এবং গবাদি পশু, হাঁস-মুরগি পালন, প্রাথমিক চিকিৎসা, মত্স্য চাষ ও কৃষি বিষয়ে প্রশিক্ষণের জন্য অষ্টম শ্রেণি পাস হলেই আবেদন করা যাবে। মডার্ন অফিস ম্যানেজমেন্ট অ্যান্ড কম্পিউটার অ্যাপ্লিকেশন কোর্সে আবেদন করতে পারবেন এইচএসসি উত্তীর্ণরা। বয়স হতে হবে ১৮ থেকে ৩৫ বছরের মধ্যে, মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের পোষ্যদের বয়সসীমা শিথিল করা হবে। আবেদনকারীকে বেকার যুবক বা যুব মহিলা হতে হবে। অগ্রাধিকার পাবেন যুব সংগঠন মনোনীত প্রার্থী ও মহিলা প্রার্থীরা।

আবেদনের নিয়ম ও বাছাই

মো. শহিদুল ইসলাম জানান, যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের ওয়েবসাইটে (.িফুফ.মড়া.নফ) আবেদন ফরম পাওয়া যাবে। যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের জেলা উপ-পরিচালক, কো-অর্ডিনেটর, ডেপুটি কো-অর্ডিনেটর, উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তার কাছ থেকেও আবেদন ফরম সংগ্রহ করা যাবে। আবেদন ফরমে বাংলা ও ইংরেজিতে নিজ নাম, পিতা ও মাতার নাম, জন্মতারিখ, বিজ্ঞপ্তি দেওয়ার তারিখে বয়স, জাতীয় পরিচয়পত্রের নম্বর বা জন্মসনদপত্র, বর্তমান ও স্থায়ী ঠিকানা, শিক্ষাগত যোগ্যতা, ধর্ম, লিঙ্গ, মোবাইল নম্বর, আগে কোনো প্রশিক্ষণ নিলে প্রশিক্ষণের নাম, যুব সংগঠনের সদস্য হলে সংগঠনের নাম, ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা বা প্রশিক্ষণ গ্রহণের কারণ উল্লেখ করতে হবে। পূরণকৃত আবেদন ফরমের সঙ্গে শিক্ষাগত যোগ্যতার সনদের ফটোকপি, জাতীয় পরিচয়পত্র থাকলে তার ফটোকপি অথবা স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান, পৌর কমিশনার বা জন্মনিবন্ধন সনদের ফটোকপি এবং সদ্য তোলা ২ কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি আবেদনকারী বা উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তার দ্বারা প্রত্যয়ন বা সত্যায়িত করে সংযুক্ত করতে হবে। বাছাইয়ের দিন আনতে হবে মূল সনদপত্র। প্রয়োজনীয় কাগজপত্রসহ আবেদন ফরম জমা দেওয়া যাবে ইউনিয়ন ডিজিটাল সেন্টার, যুব প্রশিক্ষণকেন্দ্র, উপজেলা বা জেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তার কার্যা লয়ে।

পোশাক তৈরি, মডার্ন অফিস ম্যানেজমেন্ট অ্যান্ড কম্পিউটার অ্যাপ্লিকেশন, ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড হাউসওয়্যারিং, রেফ্রিজারেশন অ্যান্ড এয়ারকন্ডিশনিং, ইলেকট্রনিকস কোর্সে আবেদন ফরম জমার শেষ তারিখ ২৮ ডিসেম্বর। গবাদি পশু, হাঁস-মুরগি পালন, প্রাথমিক চিকিৎসা, মত্স্য চাষ ও কৃষি বিষয়ে প্রশিক্ষণের জন্য ১২ জানুয়ারি পর্যন্ত আবেদন ফরম জমা দেওয়া যাবে। মৌখিক সাক্ষাত্কারের মাধ্যমে প্রশিক্ষণার্থী বাছাই করা হবে। পোশাক তৈরি, মডার্ন অফিস ম্যানেজমেন্ট অ্যান্ড কম্পিউটার অ্যাপ্লিকেশন কোর্সের আবেদনকারীদের সাক্ষাত্কার নেওয়া হবে ২৯ ডিসেম্বর। ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড হাউসওয়্যারিং, রেফ্রিজারেশন অ্যান্ড এয়ারকন্ডিশনিং, ইলেকট্রনিকস কোর্সে সাক্ষাত্কার হবে ৩০ ডিসেম্বর। গবাদি পশু, হাঁস মুরগি পালন, প্রাথমিক চিকিৎসা, মত্স্য চাষ ও কৃষি বিষয়ে আবেদনকারীদের বাছাইয়ের জন্য সাক্ষাত্কার নেওয়া হবে ১৩ জানুয়ারি। সাক্ষাত্কার নেওয়া হবে প্রত্যেক জেলার যুব উন্নয়ন কার্যা লয়ে। নির্ধারিত তারিখে সকাল ৯টার মধ্যে সাক্ষাত্কারের জন্য উপস্থিত হতে হবে। কেন প্রশিক্ষণ নিতে চায়, প্রশিক্ষণ পেলে কতটুকু উপকৃত হবে, কাজের প্রতি আগ্রহ কেমন—এসব বিষয়ে জানতে চাওয়া হয় মৌখিক সাক্ষাত্কারে।

নামমাত্র খরচ, মিলবে ভাতা

প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে নামমাত্র মূল্যে। কোর্সে ভর্তি ফি ১০০ টাকা এবং জামানত হিসেবে ১০০ টাকা জমা দিতে হবে। কোর্স শেষে ফেরত দেওয়া হবে জামানতের টাকা। গবাদি পশু, হাঁস-মুরগি পালন, প্রাথমিক চিকিৎসা, মত্স্য চাষ ও কৃষি প্রশিক্ষণ কোর্স ফি ১০০ টাকা।

পোশাক তৈরি কোর্স ফি ৫০ টাকা, মডার্ন অফিস ম্যানেজমেন্ট অ্যান্ড কম্পিউটার অ্যাপ্লিকেশন কোর্স ফি ৫০০ টাকা। ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড হাউসওয়্যারিং, রেফ্রিজারেশন অ্যান্ড এয়ারকন্ডিশনিং, ইলেকট্রনিকস কোর্সে ৩০০ টাকা কোর্স ফি জমা দিতে হবে। গবাদি পশু, হাঁস-মুরগি পালন, প্রাথমিক চিকিৎসা, মত্স্য চাষ ও কৃষি প্রশিক্ষণ কোর্সে উপস্থিতির ওপর ভিত্তি করে প্রতি মাসে ১২০০ টাকা এবং কুড়িগ্রাম কেন্দ্রের প্রশিক্ষণার্থীদের ৭০০ টাকা হারে ভাতা দেওয়া হবে।

কোর্স শেষে মিলবে ঋণ

প্রশিক্ষণ কোর্সে অংশ নেওয়া প্রত্যেক প্রশিক্ষণার্থীকে সনদপত্র দেওয়া হবে। কোর্স শেষে লব্ধ জ্ঞানের ওপর ভিত্তি করে ঋণ দেওয়া হয় প্রশিক্ষণার্থীদের। যারা আত্মকর্মসংস্থানে ইচ্ছুক, তারা নিজস্ব প্রকল্প উপস্থাপন করে যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর থেকে ঋণ নিতে পারবে। পাশাপাশি যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর থেকে প্রশিক্ষণপ্রাপ্তদের ঋণ দেয় জনতা ব্যাংক ও কর্মসংস্থান ব্যাংক। এ ক্ষেত্রে যুব উন্নয়নের সুপারিশক্রমে আবেদনকারীর ভবিষ্যৎ কর্মপরিকল্পনার ওপর ভিত্তি করে সহজ শর্তে এক লাখ টাকা পর্যন্ত ঋণ দেওয়া হয়।

সূত্র: কালের কণ্ঠ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on pinterest
Share on whatsapp
Share on telegram
Share on pocket

এরকম আরও নিউজ