জাপানের গিফু ইউনিভার্সিটি

জাপানের গিফু সিটিতে একেবারেই সরকারের আর্থিক আনুকূল্যে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে একটি বিশ্ববিদ্যালয়, যার নাম গিফু ইউনিভার্সিটি। নানা বিষয়ে উচ্চতর ডিগ্রি প্রদানের ক্ষেত্রে এ বিশ্ববিদ্যালয়টি কেবল জাপানেই নয়, এশিয়া মহাদেশের ১০০টি বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে প্রথম।

এ বিশ্ববিদ্যালয়টির প্রতিষ্ঠার ইতিহাস আট-দশটি সাধারণ বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার মতো। শুরুতে এটি গিফু শহরের সবচেয়ে মাঝারি মানের একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ছিল। পড়াশোনা করার সুযোগ পেত কেবল গিফু শহর এবং তার আশপাশের শিক্ষার্থীরাই। তবে গিফু একটি ঐতিহাসিক শহর এবং ভৌগোলিক কারণে জাপানের মধ্যবর্তী স্থানে অবস্থিত বলে সবসময়ই শহরটি আলাদা গুরুত্ব পেত। ১৯৪৯ সালে মাত্র দুটি ফ্যাকাল্টি নিয়ে গিফু ইউনিভার্সিটি যাত্রা শুরু করে।

এ দুটি ফ্যাকাল্টি ছিল শিক্ষা এবং কৃষি। পরে শিক্ষার্থীর সংখ্যা বৃদ্ধি পেলে বাড়ানো হয় ফ্যাকাল্টি এবং ডিপার্টমেন্টের সংখ্যা। বর্তমানে গিফু ইউনিভার্সিটিতে যেসব বিষয়ে আন্ডারগ্র্যাজুয়েট, গ্র্যাজুয়েট এবং বিভিন্ন বিষয়ে কোর্স সম্পন্ন করা যায় তা হলোথ

ফ্যাকাল্টি : ফ্যাকাল্টি অব এডুকেশন, ফ্যাকাল্টি অব রিজিওনাল স্টাডিজ, ফ্যাকাল্টি অব মেডিসিন, ফ্যাকাল্টি অব ইঞ্জিনিয়ারিং, ফ্যাকাল্টি অব অ্যাপ্লাইড বায়োলজিক্যাল সায়েন্সেস, ফ্যাকাল্টি অব এগ্রিকালচার।

গ্র্যাজুয়েট স্কুলস : গ্র্যাজুয়েট স্কুল অব এডুকেশন, গ্র্যাজুয়েট স্কুল অব রিজিওনাল স্টাডিজ, গ্র্যাজুয়েট স্কুল অব মেডিসিন , গ্র্যাজুয়েট স্কুল অব ইঞ্জিনিয়ারিং, গ্র্যাজুয়েট স্কুল অব এগ্রিকালচার। ইউনাইটেড গ্র্যাজুয়েট স্কুল অব এগ্রিকালচার সায়েন্স [তবে ইউনাইটেড গ্র্যাজুয়েট স্কুল অব এগ্রিকালচার সায়েন্স নামের বিভাগটি পরিচালিত হয় শিজুওকা ইউনিভার্সিটি ও শিনশু ইউনিভার্সিটির সঙ্গে যৌথভাবে]

ইউনাইটেড গ্র্যাজুয়েট স্কুল অব ভেটেরিনারি সায়েন্সেস [এই বিভাগটিও পরিচালিত হয় ওবিহিরো ইউনিভার্সিটি অব এগ্রিকালচার অ্যান্ড ভেটেরিনারি মেডিসিন, আইওয়েট ইউনিভার্সিটি এবং টোকিও ইউনিভার্সিটি অব এগ্রিকালচার অ্যান্ড টেকনোলজির সঙ্গে যৌথভাবে]

গিফু ইউনিভার্সিটিতে ১৯৯৬ সালের আগে বিদেশি শিক্ষার্থীদের ভর্তি হওয়ার কোনো সুযোগ ছিল না। এখন বিশ্ববিদ্যালয়টির ক্যাম্পাসের সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় এবং বিচিত্র বিষয়, যা যুগোপযোগী; পাঠ্য তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করায় বিদেশি শিক্ষার্থীদের সুযোগ বহুলাংশে বেড়ে গেছে। গিফু ইউনিভার্সিটি বিদেশি শিক্ষার্থীদের দিয়ে থাকে নানা ধরনের সুযোগ। জাপানে যারা উচ্চশিক্ষা গ্রহণে আগ্রহী, তারা গিফু ইউনিভার্সিটি সম্পর্কে তথ্য সংগ্রহ করতে পারেন। বিশ্ববিদ্যালয়টির অফিসিয়াল ওয়েবসাইট হলো-www.gifu-u.ac.jp