আন্তর্জাতিক পুরস্কার পেলেন বাংলাদেশি শিক্ষার্থী রাসেল দাস

রাসেল দাস
এবার সমুদ্রের পানি বিশুদ্ধকরণে আন্তর্জাতিক পুরস্কার পেলেন বাংলাদেশি শিক্ষার্থী রাসেল দাস। তার পি এইচ ডি গবেষণা ‘কার্বন ন্যানোটিউব ম্যাম্ব্রেনস ফর ওয়াটার পিউরিফিকেশন’ জিতে নিল এলভিস-আটলাস পুরস্কার ২০১৫। প্রতি বছর বিজ্ঞানের সব শাখার (পদার্থ, রসায়ন, স্বাস্থ্য গবেষণা এবং বিভিন্ন) বিভিন্ন গবেষণা থেকে তিন হাজারেরও বেশি জার্নালে প্রকাশিত তিন লক্ষ গবেষণা পত্র থেকে বাছাই করে এ পুরস্কার দেওয়া হয়। এ বছর সেরা নির্বাচত হয় রাসেলের গবেষণা।

এল্সভিয়ার্স-আটলাস এর পেপার নির্বাচন করা হয় জাতিসংঘের পরিবেশ বিজ্ঞান গবেষণা বিভাগ ইনস্টিটিউট, কৃষিবিজ্ঞান এবং খাদ্য ইনস্টিটিউট, জাতীয় স্বাস্থ্য বিষয়ক ইনস্টিটিউট এবং আরও প্যানেলের মাধ্যমে। রাসেল বলেন, পৃথিবীতে ৫০টির বেশি দেশে ৭০০ মিলিয়ন (৭০ কোটি) মানুষ এখন নিরাপদ পানি পান করতে পারছে না। এগুলোর অধিকাংশই অউন্নয়নশীল দেশ। এটি জাতিসংঘের বিভিন্ন বিজ্ঞানীদের কাছে একটি বড় চ্যালেঞ্জ।

2

তিনি জানান, উন্নত দেশগুলোতে এখন রিভার্স অস্মসিস মেমব্রেন দিয়ে সাগরের পানি বিশুদ্ধে করা হয় তবে এক্ষেত্রে প্রয়োজন হয় বিদ্যুৎ শক্তির। এতে খরচ হয় অনেক বেশি- যা অনেক অনুন্নত দেশের জন্য বড় সমস্যা। তার এই প্রস্তাবিত ন্যানো টিউব মেমব্রেন দিয়ে অল্প সময়ে বিদ্যুৎ শক্তি ছাড়াই পানি বিশুদ্ধ করা সম্ভব হবে। মেমব্রেন হল একটি অতি ক্ষুদ্র লেয়ার বা পর্দা যা ছাকুনির মতো কাজ করে।

রাসেল এর জন্ম ১৯৮৭ সালে ১৭ জুন। ২০০৯ এবং ২০১১ সালে চট্টগ্রাম বিজ্ঞান এবং প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে প্রথম বিভাগে স্নাতক পাশ করে বায়োটেকনোলজিতে স্নাতকোত্তর লাভ করেন। ২০১২ সালে তিনি চট্টগ্রাম বিজ্ঞান এবং প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে বায়োটেকনোলজি বিভাগে লেকচারার হিসেবে যোগ দেন। পরবর্তীতে ২০১২ সালে তিনি মালয় বিশ্ববিদ্যালয়ে ব্রাইট স্পার্ক স্কলারশিপে ইন্সটিউট অব টেকনোলজিতে পি এইচ ডি তে ভর্তি হন। আগামীতে আরও ভাল কিছু করার জন্য দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন রাসেল।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on pinterest
Share on whatsapp
Share on telegram
Share on pocket

এরকম আরও নিউজ